রাতের ভ্রমণ এবং ঊর্ধ্বলোকে আরোহণ-১ | মহানবী হযরত মুহাম্মদ ( সাঃ ) জীবন

রাতের ভ্রমণ এবং ঊর্ধ্বলোকে আরোহণ-১ | মহানবী হযরত মুহাম্মদ ( সাঃ ) জীবন, “দুঃখের বছর’ এবং তায়েফের কষ্টকর অভিজ্ঞতা বা পরীক্ষার পর আল্লাহ রাব্বুল আলামিন নবি করিমকে (সা) একটি বড় রকমের মিরাকল দান করেন। আল্লাহ পবিত্র কোরানে প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন, তিনি আমাদের পরীক্ষা করেন না যদি-না তিনি তার পরে স্বস্তি দেন। সুরা ইনশিরায় আল্লাহ বলেছেন, “কষ্টের সাথেই তো স্বস্তি রয়েছে। নিশ্চয়ই কষ্টের সাথেই স্বস্তি রয়েছে।”

 

রাতের ভ্রমণ এবং ঊর্ধ্বলোকে আরোহণ-১ | মহানবী হযরত মুহাম্মদ ( সাঃ ) জীবন

 

রাতের ভ্রমণ এবং ঊর্ধ্বলোকে আরোহণ-১ | মহানবী হযরত মুহাম্মদ ( সাঃ ) জীবন

[৯৪:৫-৬) তিনি আরও বলেছেন, ধৈর্যশীলেরা ধৈর্যের সুফল ভোগ করবে। সুতরাং নবিজির (সা) জীবনে সবচেয়ে কষ্টকর ও দুর্বিষহ অবস্থা থেকে উত্তরণ ঘটিয়ে আল্লাহ যে তাঁকে অনেক বড় কোনো উপহার দেবেন সেটাই তো স্বাভাবিক। আমরা জানি, নবিজির (সা) জীবনে একাধিকবার উত্থান-পতনের ঘটনা ঘটেছে। কিন্তু পরপর কয়েকটি ব্যক্তিগত বিপর্যয়ের পর এবারের মিরাকলটি মহান আল্লাহ তায়ালার পক্ষ থেকে তাঁর রসুলের (সা) জন্য একান্ত ব্যক্তিগতভাবে দেওয়া উপহার, যা কোনো উম্মতের জন্য নয়। এই বিশেষ উপহারটি হলো ‘আল ইসরা ওয়াল মিরাজ’: রাতের ভ্রমণ এবং ঊর্ধ্বলোকে আরোহণ। বিশেষ এই ঘটনাটি পবিত্র কোরানে দুই স্থানে উল্লিখিত আছে।

 

islamiagoln.com google news
আমাদের গুগল নিউজে ফলো করুন

 

আল-ইসরা ও আল-মিরাজ কী?

ভাষাতাত্ত্বিকভাবে আরবি ইসরা শব্দের অর্থ ‘রাতের ভ্রমণ’। আল-ইসরা অর্থ ‘রাতের ভ্রমণটি’ (অর্থাৎ রাতে যে ভ্রমণটি সংঘটিত হয়েছে)। কিন্তু ইসলামি পরিভাষায় কিংবা সিরাহের বর্ণনায় আল-ইসরা (বা সংক্ষেপে ইসরা) বলতে আমরা বুঝি নবিজির (সা) মক্কা থেকে জেরুসালেম যাওয়ার রাতের ভ্রমণটি শব্দের অর্থ যে বস্তু বা যন্ত্রের সাহায্যে ওপরে ওঠা যায়। অতএব আল-মিরাজ অর্থ ‘ওপরে উঠতে ব্যবহৃত যন্ত্রটি’। আমরা ওপরে যেমন লিফট ব্যবহার করি তেমনটি বলা যেতে পারে।

 

রাতের ভ্রমণ এবং ঊর্ধ্বলোকে আরোহণ-১ | মহানবী হযরত মুহাম্মদ ( সাঃ ) জীবন

 

এটি এমন একটি যন্ত্র বা সরঞ্জাম যা কোনো ব্যক্তিকে ওপরে উঠতে সাহায্য করে। ভাষাতাত্ত্বিকভাবে আল-মিরাজ (বা সংক্ষেপে মিরাজ) বলতে একটি সরঞ্জামকে বোঝালেও ইসলামি কিংবা সিরাহের পরিভাষায় আমরা এটি দিয়ে নবিজির (সা) উর্ধ্বলোকে আরোহণের ঘটনাটি বুঝে থাকি। সুতরাং ইসরা হলো নবিজির (সা) মক্কা থেকে জেরুসালেম যাত্রা, যা ঘটেছিল রাতের বেলা; আর মিরাজ হলো তাঁর জেরুসালেম থেকে ঊর্ধ্বলোকে যাত্রা।

আরো পরূনঃ

Leave a Comment